বর্তমান তারিখ:23 August, 2019

শাওমি অ্যানাউন্স করেছে তাদের নতুন হেডফোন এয়ারডটস

বাজেট ইলেকট্রনিক ডিভাইস যেমন বাজেট স্মার্টফোন, স্মার্টওয়াচ, ফিটনেস ব্যান্ড, হেডফোন এবং অন্যান্য অনেক স্মার্ট হোম ডিভাইস তৈরির জন্য এশিয়ার মার্কেটে শাওমি ব্র্যান্ডটি খুবই জনপ্রিয়। অনেক আগে থেকেই স্মার্টফোন এবং অন্যান্য স্মার্ট ডিভাইসের পাশাপাশি হেডফোনও তৈরি করে আসছে শাওমি। শাওমি মি পিস্টন সিরিজের সব হেডফোনগুলোই বেশ জনপ্রিয়তা পেয়েছিলো এশিয়ার মার্কেটে। তবে শাওমি এবার অ্যানাউন্স করেছে তাদের নতুন হেডফোন “এয়ারডটস (AirDots)” যেটি অনেকটাই অ্যাপলের এয়ারপডসের মতো। শুধুমাত্র ডিজাইন এবং বিল্ড নয়, বরং ফিচারস এর দিক থেকেও এটি অ্যাপলের ১৫০ ডলার মুল্যের এয়ারপডসের মতো।

অ্যাপলের এয়ারপডসের মতো দেখতে এই এয়ারডটসগুলোতেও থাকছে এয়ারপডসের মতো ফিজিক্যাল টাচ বেজড কনট্রোল, যার সাহায্যে এয়ারডটসগুলোর ওপরে ট্যাপ করে মিউজিক কনট্রোল করা সম্ভব হবে। এছাড়া এই এয়ারডটসগুলোর সাথেও থাকছে অ্যাপলের এয়ারপডসের মতো একটি কমপ্যাক্ট চার্জিং কেস। তবে শাওমির এই এয়ারডটসগুলো পুরোটাই প্লাস্টিক বিল্ডের নয়। এই এয়ারডটগুলোতে অন্যান্য ট্রেডিশনাল হেডফোনের মতো সিলিকনের তৈরি এয়ারটিপস থাকছে যা অন্যান্য অনেক হেডফোনের তুলনায় আরো ভালো সাউন্ড আইসোলেশন প্রোভাইড করতে পারবে বলে দাবী করে শাওমি।


WiREBD এখন ইউটিউবে, নিয়মিত টেক/বিজ্ঞান/লাইফ স্টাইল বিষয়ক ভিডিও গুলো পেতে WiREBD ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুণ! জাস্ট, youtube.com/wirebd — এই লিংকে চলে যান এবং সাবস্ক্রাইব বাটনটি হিট করুণ!

শাওমির তৈরি এই বাজেট এয়ারপডগুলো নিশ্চিতভাবেই অ্যাপলের এয়ারপডসের মতো এত ভালো সাউন্ড কোয়ালিটি দিতে পারবে না, তবে অন্যান্য অনেক তুলনামূলকভাবে বেশি দামী হেডফোনের থেকে বেটার সাউন্ড কোয়ালিটি দিতে পারবে বলে দাবী করে শাওমি। এই শাওমি এয়ারডটগুলো বর্তমানে শুধুমাত্র চায়নার মার্কেটে প্রি অর্ডার করা সম্ভব এবং এটির চাইনিজ প্রাইসিং ১৯৯ ইউয়ান যা প্রায় ৩০ ইউএস ডলারের সমান। এই এয়ারডটসগুলো শাওমি গ্লোবাল মার্কেটে এভেইলেবল করবে কি না এবং গ্লোবাল মার্কেটে আসলে এটির গ্লোবাল প্রাইসিং কেমন হবে সে বিষয়ে তেমন কিছু জানা যায়নি।