বর্তমান তারিখ:23 August, 2019

সাড়ে 8 লাখ টাকা মুল্যের স্মার্টফোন ভার্চু অ্যাস্টার পি!

একটি স্মার্টফোনের দাম সর্বোচ্চ কত হতে পারে বলে আপনার ধারনা? ৭০ হাজার? ৯০ হাজার? আচ্ছা, ১ লাখ? আচ্ছা, ১ লাখ ৫০ হাজারই ধরুন। মুলত ৭০ হাজারের প্রাইস ব্রাকেট ক্রস করলেই আমরা স্মার্টফোনটিকে প্রিমিয়াম এবং এক্সপেনসিভ স্মার্টফোন বলে থাকি। আর ১ লাখ টাকার বেশি হলে তো আমরা সেটিকে মানুষের কিডনির সাথেই তুলনা করা শুরু করি। কিন্তু এক্সপেনসিভ স্মার্টফোনের সমস্ত লিমিট ক্রস করে এমন কয়েকটি স্মার্টফোনও আছে পৃথিবীতে। হাস্যকর রকম দামী স্মার্টফোন তৈরি করার ক্ষেত্রে সবথেকে এগিয়ে আছে যে কোম্পানিটি, তার নাম হচ্ছে ভার্চু (Vertu)। এই কোম্পানির তৈরি প্রত্যেকটি স্মার্টফোনই স্পেসিফিকেশনের দিক থেকে খুবই সাধারন, তবে প্রাইস এবং বিল্ড কোয়ালিটির দিক থেকে অবিশ্বাস্যরকম প্রিমিয়াম হয়ে থাকে।

এর আগেও ভার্চু কয়েকটি মারাত্মক দামী স্মার্টফোন তৈরি করেছে। তবে এবার তারা প্রিমিয়াম স্মার্টফোনের মার্কেটে ফিরে আসছে তাদের নতুন স্মার্টফোন, ভার্চু অ্যাস্টার পি (Vertu Aster P) নিয়ে। এই স্মার্টফোনটিও ভার্চুর আগের স্মার্টফোনগুলোর মতোই (অন্তত প্রাইসিং এর ক্ষেত্রে)। এই স্মার্টফোনটি ইংল্যান্ডে হ্যান্ডমেড। অর্থাৎ, স্মার্টফোনটি তৈরি করার সময় মেশিন বা রোবটের তুলনায় মানুষের হাতের ব্যাবহার বেশি করা হয়েছে। এই স্মার্টফোনটিতে থাকছে একটি টাইটানিয়ামের তৈরি ফ্রেম এবং ফ্রেমের ওপরে প্লেস করা ডিসপ্লেটি ১৩৩ ক্যারেট স্যাফায়ার ক্রিস্টালের তৈরি।

এছাড়া ফোনটির ব্যাক পার্ট বিভিন্ন ধরনের প্রিমিয়াম ম্যাটেরিয়াল দিয়ে সাজিয়ে তোলার অপশন আছে। এই প্রিমিয়াম ম্যাটেরিয়ালগুলোর মধ্যে কুমিরের স্কিনের তৈরি লেদার ব্যাবহার করারও অপশন আছে। এই ফোনটিতে আরও থাকছে একটি লাল রঙের বাটন না রুবি-এর তৈরি এবং এই বাটনটি প্রেস করে ফোনের কিছু স্পেশাল পার্সোনাল সেটিংস অ্যাক্সেস করা সম্ভব হবে। এছাড়া ফোনটির ব্যাক সাইডের একটি পার্ট পপআপ করা সম্ভব হয় যেটি ওপেন করে ভেতরের সিম কার্ড স্লট অ্যাক্সেস করা যাবে। এছাড়া এই পার্টটিতে মালিকের ফোনটি অ্যাকচুয়ালি যিনি নিজের হাতে তৈরি করেছেন, তার একটি সাইনও থাকবে।

এই ধরনের প্রিমিয়াম একটি স্মার্টফোনে হয়তো আপনি চাইবেন যে পৃথিবীর সবথেকে হাই এন্ড হার্ডওয়্যারগুলো থাকুক। কিন্তু না, স্পেসিফিকেশনের দিক থেকে এই ফোনটি খুবই সাধারন। এই ফোনটিতে থাকা অ্যামোলেড ডিসপ্লেটির সাইজ মাত্র ৪.৯ ইঞ্চি। আপনি যদি এখানে বেজেল-লেস ডিসপ্লে, ১৮ঃ৯ অ্যাসপেক্ট রেশিও ইত্যাদি ফ্যান্সি ফিচার আশা করেন তাহলে আপনি অবশ্যই হতাশ হবেন। এই ফোনটিতে থাকছে কোয়ালকমের আপার মিডরেঞ্জ চিপসেট, স্ন্যাপড্রাগন ৬৬০ এবং সাথে থাকছে ৬ জিবি র‍্যাম এবং ১২৮ জিবি ইন্টারনাল স্টোরেজ। এছাড়াও আছে ১২ মেগাপিক্সেল রিয়ার ক্যামেরা এবং ২০ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা, যেগুলোও তেমন বিশেষ কিছু নয়।


WiREBD এখন ইউটিউবে, নিয়মিত টেক/বিজ্ঞান/লাইফ স্টাইল বিষয়ক ভিডিও গুলো পেতে WiREBD ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুণ! জাস্ট, youtube.com/wirebd — এই লিংকে চলে যান এবং সাবস্ক্রাইব বাটনটি হিট করুণ!

ভার্চু অ্যাস্টার পি স্মার্টফোনটি এখন শুধুমাত্র চায়নাতেই এভেইলেবল এবং এটির স্টার্টিং প্রাইস ৫১৬৭ ইউএস ডলার যা বাংলাদেশি টাকায় প্রায় ৪ লাখ ৪০ হাজার টাকার সমান এবং এই স্মার্টফোনটির একটি গোল্ড প্লেটেড ভার্সনও তৈরি করেছে ভার্চু, যার মূল্য ১৪,১৪৬ ইউএস ডলার যা বাংলাদেশি টাকায় প্রায় ১২ লক্ষ্য ৪০ হাজার টাকার সমান!

Share