গ্যালাক্সি ফোল্ডের মতো সমস্যা যাতে না হয়, সে জন্য হুয়াওয়ে মেট এক্স দেরীতে লঞ্চ করা হচ্ছে!

গ্যালাক্সি ফোল্ডের মতো সমস্যা যাতে না হয়, সে জন্য হুয়াওয়ে মেট এক্স দেরীতে লঞ্চ করা হচ্ছে!

স্যামসাংই একমাত্র কোম্পানি নয় যারা ফোল্ডেবল স্মার্টফোনে খানিকটা ফেইল হয়েছে, হুয়াওয়ে ও তাদের মেট এক্স ফোল্ডেবল স্মার্টফোন লঞ্চ করতে দেরি করছে। চাইনিজ এই কোম্পানিটি CNBC ও The Wall Street Journal এর কাছে জানিয়েছে, “তারা এমন কোন অপ্রস্তুত প্রোডাক্ট মার্কেটে লঞ্চ করে নিজেদের সুনাম নষ্ট করতে আগ্রহী নয়”।

স্যামসাং এর ফোল্ডেবল ফোনে ডিসপ্লে ইস্যু ছিল, ফোন রিভিউয়ার’রা ডিসপ্লের উপর থেকে প্রটেক্টর মনে করে একটি প্ল্যাস্টিক তুলে ফেলেন, এতে ফোনটির ডিসপ্লে সম্পূর্ণ ধ্বংস হয়ে যায়। অনেকের রিপোর্ট অনুসারে ঐ প্ল্যাস্টিক আবরণ না উঠানোর পরেও অনেক ফোনের ডিসপ্লেতে সমস্যা দেখা দিয়েছিলো। তো এক কোথায় বলতে পারেন গ্যালাক্সি ফোল্ড লঞ্চ করার জন্য রেডি ছিল না। তাই লঞ্চ করার তারিখ প্রকাশিত করার পরেও কোম্পানিটিকে লঞ্চ বাতিল করতে হয়েছিলো।

যদিও ডিজাইনের দিক থেকে গ্যালাক্সি ফোল্ড থেকে হুয়াওয়ে মেট এক্স আলাদা, এটি বাইরের দিকে ফোল্ড হয় যেখানে গ্যালাক্সি ফোল্ড ভেতরের দিকে ফোল্ড হতো। কিন্তু তারপরেও কোম্পানিটি কোন রিস্ক নিতে চাচ্ছে না। তারা সকল প্রয়োজনীয় টেস্ট সম্পূর্ণ করবে তারপরেই ফোনটি মার্কেটে লঞ্চ করবে।

এখন বড় প্রশ্ন হচ্ছে এই নতুন মেট এক্স ফোল্ডেবল ফোনটি কি অ্যান্ড্রয়েডের সাথে লঞ্চ করা হবে, নাকি হুয়াওয়ে এতে নিজেদের অপারেটিং সিস্টেম যুক্ত করবে। গত মাস থেকে ইউএস ও হুয়াওয়ের মধ্যে ঝামেলা চলছে। ইউএস হুয়াওয়েকে ব্ল্যাকলিস্টে যুক্ত করে দিয়েছে ফলে ইউএস এর কোন কোম্পানি হুয়াওয়ের সাথে বিজনেস করতে পারবে না। হুয়াওয়ে থেকে বলা হয়েছে যেহেতু এই মেট এক্স ফোনটি ইউএস ব্যানের আগেই লঞ্চ করা হয়েছে তাই এতে অ্যান্ড্রয়েড ইউজ করেই লঞ্চ করা হবে। তবে হুয়াওয়ে তাদের নিজেদের অপারেটিং সিস্টেম ও যুক্ত করতে পারে, এই ব্যাপারে পরিষ্কার করে কিছু বলতে না পারা গেলেও ফোনটি রিলিজ হওয়ার পরে আসল ব্যাপারটি জানা যাবে।



WiREBD এখন ইউটিউবে, নিয়মিত টেক/বিজ্ঞান/লাইফ স্টাইল বিষয়ক ভিডিও গুলো পেতে WiREBD ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুণ! জাস্ট, youtube.com/wirebd — এই লিংকে চলে যান এবং সাবস্ক্রাইব বাটনটি হিট করুণ!

Image: Shutterstock.com