দক্ষিণ কোরিয়ায় চালু হতে যাচ্ছে বিশ্বের প্রথম ৫জি সার্ভিস!

বিশ্বের নানান দেশ গুলো ইতিমধ্যে বেটা ভার্সনে ৫জি রান করেছে। কিন্তু এবার জাপান, আমেরিকা, আর আরো বড় দেশ গুলোকে ঘোল খাইয়ে দক্ষিণ কোরিয়া সর্বপ্রথম কমার্শিয়াল ৫জি চালু করতে চলেছে, যেটা যেকোনো ইউজারগণ ইউজ করতে পারবেন। SK Telecom নামক এই দক্ষিণ কোরিয়ান মোবাইল অপারেটরটি সামনের শুক্রবারে স্যামসাং গ্যালাক্সি এস১০ এর ৫জি সাপোর্টেড এডিশনের সাথে তাদের কমার্শিয়াল ৫জি নেটওয়ার্ক রান করবেন।

অপারেটরটি জানিয়েছে, তারা বেস্ট কভারেজ, ট্রু ৫জি স্পীড এবং বেটার সিকিউরিটি প্রদান করতে সক্ষম। অপারেটর টি দক্ষিণ কোরিয়ার সবচাইতে বড় অপারেটর যাদের ৩৪,০০০ ৫জি এনবল্ড বেস-স্টেশন রয়েছে। যার মাধ্যমে দেশটির ৮৫টি শহর ৫জি সিগন্যালের আওতাভূক্ত করা সম্ভব হবে। SK Telecom এর মডার্ন ৪জি এবং ৫জি নেটওয়ার্ক মিলিয়ে ২.৭ গিগাবিট/সেকেন্ড পর্যন্ত ব্যান্ডউইথ স্পীড পাওয়া যেতে পারবে, যেটা ইন্টারনেট অফ থিংস রান করানোর জন্য আদর্শ নেটওয়ার্ক হিসেবে প্রমাণিত হতে পারে।


WiREBD এখন ইউটিউবে, নিয়মিত টেক/বিজ্ঞান/লাইফ স্টাইল বিষয়ক ভিডিও গুলো পেতে WiREBD ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুণ! জাস্ট, youtube.com/wirebd — এই লিংকে চলে যান এবং সাবস্ক্রাইব বাটনটি হিট করুণ!

তো এই মুহূর্তে স্যামসাংই প্রথম ফুল ফিচার্ড ৫জি এনবল্ড স্মার্টফোন নির্মাতা, আর বিশ্বে সর্বপ্রথম Verizon ৫জি নেটওয়ার্ক চালু করে আর এরা ২০১৯ এর মধ্যেই কমার্শিয়াল ভাবে ৫জি চালু করবে। সাথে ইউকে এর মোবাইল অপারেটর কোম্পানি গুলো ও এটা নিশ্চত করেছে, ২০১৯ এর মধ্যেই তারাও কমার্শিয়াল ৫জি রান করতে চলেছে।

তাহমিদ বোরহান
প্রযুক্তির জটিল টার্মগুলো কি আপনাকে বিভ্রান্ত করছে? কিছুতেই কি আপনার মস্তিষ্কে পাল্লা পড়ছে না? তাহলে বন্ধু, আপনি এবার সঠিক জায়গায় এসেছেন—কেনোনা এখানে আমি প্রযুক্তির সকল জটিল বিষয় গুলো ভাঙ্গিয়ে সহজ পানির মতো উপস্থাপন করার চেষ্টা করি, যাতে সকলে সহজেই সকল টেক টার্ম গুলো বুঝতে পারে।