৪টি ফ্রি অনলাইন ভাইরাস স্ক্যানার ওয়েবসাইট!

৪টি ফ্রি অনলাইন ভাইরাস স্ক্যানার ওয়েবসাইট!

বিদেশি চোর ঘরে ঢোকার পূর্বে এটাই তো বেস্ট যে চোরকে এয়ারপোর্ট থেকেই আঁটকে দেওয়া! — তাহলে নিশ্চিন্তে আম ও খেতে পারবেন আবার ছালা ও সুরক্ষিত থাকবে, তাই না? বেশিরভাগ ভাইরাস বা ম্যালওয়্যার অবশ্যই ইন্টারনেট কানেকশনের মাধ্যমেই আপনার সিস্টেম অবধি চলে আসে। আর আপনাকে নানান সময়ে নানান ভাবে বোকা বানিয়ে আপনার কম্পিউটারে আপনাকে দিয়েই সেগুলো ডাউনলোড করানো হয় এবং আপনি নিজেই সেগুলোকে রান করেন, তারপরেই সকল দুর্দশার সৃষ্টি হয়।

হ্যাঁ, ম্যালিসিয়াস ফাইল গুলো আপনার কম্পিউটারে ইন্সটল থাকা দামী অ্যান্টিভাইরাস টুলও স্ক্যান করে ডিটেক্ট করতে পারবে, কিন্তু এটা কি বেশি বেটার নয়, ফাইল গুলো ডাউনলোড করার পূর্বেই স্ক্যান করে নেওয়া?

অনেক ফ্রি অনলাইন ভাইরাস স্ক্যানার ওয়েবসাইট রয়েছে, যারা ফ্রিতে এই কাজটি আপনার জন্য করতে পারে। একেক ওয়েবসাইট গুলো একেক স্টাইলে কাজ করে। কোনটা আপনার সিস্টেম থেকে ফাইল আপলোড করে আপনাকে স্ক্যান করার সুযোগ দেয়। কোন অনলাইন ভাইরাস স্ক্যানার ওয়েবসাইট গুলো আবার রিমোট লিংক বা যেকোনো ওয়েবসাইট লিংক স্ক্যান করতে পারে, ম্যালিসিয়াস ফাইল বা লিংক হলে সেটা ডিটেক্ট করার ক্ষমতা রাখে। আবারো বলছি, অবশ্যই এই কাজ আপনার সিস্টেমে থাকা অ্যান্টিভাইরাস সফটওয়্যারও করতে পারে, কিন্তু এক্সট্রা প্রটেকশনের জন্য মানে আপনি যদি কোন সুযোগই না দিতে চান সেক্ষেত্রে ফ্রি অনলাইন ভাইরাস স্ক্যানার ওয়েবসাইট গুলো বেশ কাজের প্রমাণিত হতে পারে।

এই আর্টিকেলে ৪টি ফ্রি অনলাইন ভাইরাস স্ক্যানার ওয়েবসাইট এর লিস্ট প্রদান করেছি এবং এদের কিছু বেসিক ফিচার গুলো নিয়ে আলোচনা করেছি।

VirusTotal

অনলাইন ভাইরাস স্ক্যানার টুল গুলোর নাম লিস্ট করতেই VirusTotal.com কে নং ১ পজিশনে রাখতেই হয়। বিশেষ কারণটি হচ্ছে এর সাধারণ ইন্টারফেস, মানে যে কেউই এই ওয়েবসাইট ব্যবহার করতে সক্ষম হতে পারে। তাছাড়া এটি একসাথে নানান অ্যান্টিভাইরাস ইঞ্জিনের সাথে ক্রস ভেরিফাই করে আপনার ফাইলটি স্ক্যান করে। সাথে যেকোনো ওয়েবসাইট লিংক প্রবেশ করিয়ে সেখানে ম্যালিসিয়াস লিংক রয়েছে কিনা তা স্ক্যান করতে পারবেন।

সাথে এদের অফিশিয়াল অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ রয়েছে, যার মাধ্যমে আপনি ম্যালিসিয়াস ফাইল থেকে অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইজ গুলোকেও সেফ রাখতে পারবেন। ২৫৬ মেগাবাইট সাইজ পর্যন্ত আপনি যেকোনো সিঙ্গেল ফাইল আপলোড করতে পারবেন এবং স্ক্যান করতে পারবেন। সবচাইতে ভালো মজার ব্যাপার হচ্ছে, এদের গুগল ক্রোম, ফায়ারফক্স এক্সটেশন রয়েছে। আপনি যেকোনো ফাইল ডাউনলোড করার পূর্বেই সেটা স্ক্যান করে নিতে পারবেন। ভাইরাস টোটাল zip ও rar আর্কাইভ ফাইল ও সাপোর্ট করে।

এই অনলাইন ভাইরাস স্ক্যানার টুলটির ডাউন সাইড হচ্ছে, এটি মূলত পার্সোনাল ইউজের জন্য আপনি কমার্শিয়ালভাবে এটা ইউজ করতে পারবেন না, অন্তত এরা আপনাকে অনুমতি প্রদান করে না। আর দ্বিতীয়ত এর ওয়েব ইন্টারফেস থেকে আপনি এক সময়ে কেবল একটিই মাত্র ফাইল স্ক্যান করতে পারবেন, যেটা আমার কাছে একটি লিমিটেশন মনে হয়েছে!

MetaDefender Cloud

কোন সফটওয়্যার টুলস ইন্সটল করার দরকার নেই, জাস্ট https://metadefender.opswat.com — এই লিংকে প্রবেশ করেই আপনার সিস্টেম থেকে ফাইল, ইউআরএল, বা হ্যাশ স্ক্যান করতে পারবেন। ৩০+ আলাদা আলাদা অ্যান্টিভাইরাস ইঞ্জিনের সাথে একই সময়ে আপনার ফাইলটি স্ক্যান করা যেতে পারবেন। তাছাড়া আইপি অ্যাড্রেস ইউজ করেও স্ক্যানিং করা যেতে পারে।

এদেরও গুগল ক্রোম এক্সটেশন রয়েছে, আর যতো ফ্রি অনলাইন ভাইরাস স্ক্যানার গুলো রয়েছে, MetaDefender Cloud কে এদের মধ্যে ওয়ান অফ দ্যা বেস্ট বলতে পারেন। সমস্যা হচ্ছে, আপনাকে একটি একটি করেই ফাইল স্ক্যান করতে হবে, আর ফায়ারফক্স ইউজার হলে আপনার জন্য কোন এক্সটেশন নেই!

Avira

ফ্রি অনলাইন ভাইরাস স্ক্যানার ওয়েবসাইট

https://analysis.avira.com/en/submit — এই ওয়েবসাইট’টি আর Avira এর জনপ্রিয় ট্র্যাডিশনাল অ্যান্টিভাইরাস প্রোগ্রাম একই ইঞ্জিন ব্যবহার করে কাজ করে। এই অনলাইন ফ্রি অ্যান্টিভাইরাস টুলটি একটি ফর্ম সাবমিশনের মাধ্যমে কাজ করে। ফরমের সাথে কন্টাক্ট ডিটেইলস চাওয়া হয়, যাতে স্ক্যান রেজাল্ট আপনাকে সেন্ড করতে পারে। আপনি সর্বচ্চ ৫টি ফাইল এবং সাইজ লিমিট ৫০ মেগাবাইট পর্যন্ত আপলোড করতে পারবেন।

সমস্যা হচ্ছে এই টুলটি উপরের দুইটি টুলের মতো ফ্লেক্সিবল নয়, তবে ইউজার ফ্রেন্ডলি ইন্টারফেস এটা মানতেই হবে।

FortiGuard Online Virus Scanner

https://www.fortiguard.com/faq/onlinescanner — এই অনলাইন ফ্রি টুলটি কুইক ভাইরাস স্ক্যান করার জন্য বেস্ট। আপনার ফাইলটি সিলেক্ট করার পরে আপনার নাম, ইমেইল অ্যাড্রেস, এবং ফাইলটি সম্পর্কে কিছু লিখে সাবমিট করতে হবে। তারপরে পেজটি রিফ্রেশ হলেই আপনার রেজাল্ট দেখতে পাবেন।

এর থেকে ইজি টুলস আর কিছুই হতে পারে না, কিন্তু সমস্যার কথা হচ্ছে ফাইল আপলোড লিমিট কেবল মাত্র ১ মেগাবাইট, যেটা এর সকল গুন গুলোকে ধুয়ে মুছে ছাফ করে ফেলেছে। আর হ্যাঁ, কোন ব্রাউজার এক্সটেনশন নেই।

আর্টিকেলের শেষে আরেকটি বাড়তি টিপস শেয়ার করেই যাই, আপনি জাস্ট ইমেইল সেন্ড করার মাধ্যমেই আপনার ফাইলটি স্ক্যান করতে পারবেন। আপনার ফাইলটি অ্যাটাচ করে [email protected] এই ইমেইল অ্যাড্রেস এ সেন্ড করে দিন, সাবজেক্ট অবশ্যই “SCAN” লিখবেন, আর হ্যাঁ আপলোড লিমিট ৩২ মেগাবাইট পর্যন্ত। ব্যাস ভাইরাস টোটাল আপনাকে মেইল রিপ্লাই করে স্ক্যান রেজাল্ট প্রদান করবে!

তো এই ছিল কিছু ফ্রি অনলাইন ভাইরাস স্ক্যানার ওয়েবসাইট, যেগুলো যেকোনো সময় আপনার কাজে লাগতে পারে। আর হ্যাঁ, আপনার লিস্টে আরো বেস্ট ফ্রি অনলাইন ভাইরাস স্ক্যানার ওয়েবসাইট থাকলে আমাকে নিচে কমেন্ট করে জানাতে ভুলবেন না!



WiREBD এখন ইউটিউবে, নিয়মিত টেক/বিজ্ঞান/লাইফ স্টাইল বিষয়ক ভিডিও গুলো পেতে WiREBD ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুণ! জাস্ট, youtube.com/wirebd — এই লিংকে চলে যান এবং সাবস্ক্রাইব বাটনটি হিট করুণ!

Images: WiREBD

তাহমিদ বোরহান
প্রযুক্তির জটিল টার্মগুলো কি আপনাকে বিভ্রান্ত করছে? কিছুতেই কি আপনার মস্তিষ্কে পাল্লা পড়ছে না? তাহলে বন্ধু, আপনি এবার সঠিক জায়গায় এসেছেন—কেনোনা এখানে আমি প্রযুক্তির সকল জটিল বিষয় গুলো ভাঙ্গিয়ে সহজ পানির মতো উপস্থাপন করার চেষ্টা করি, যাতে সকলে সহজেই সকল টেক টার্ম গুলো বুঝতে পারে।