লিক হয়েছে পিক্সেল থ্রি লাইট : থাকতে পারে হেডফোন জ্যাক!

এবছর গুগল রিলিজ করেছে তাদের ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন, পিক্সেল লাইনআপের পরবর্তী ডিভাইস গুগল পিক্সেল থ্রি এবং পিক্সেল থ্রি এক্সেল। তবে দুঃখজনকভাবে আগের বছরগুলোতে গুগল তাদের নতুন পিক্সেল ফোনগুলো দিয়ে স্মার্টফোন মার্কেটে আগের মতো এত বেশি হাইপ তৈরি করতে পারেনি। এর সবথেকে বড় কারনই হচ্ছে, ইউজারদের চাহিদার দিকে লক্ষ্য না রাখা। গুগলের কয়েকটি নেগেটিভ ডিসিশনের কারণেই এই নতুন জেনারেশনের পিক্সেল ফোনগুলো মার্কেটে খুব বেশি সাড়া ফেলতে পারেনি। এর একটি কারন হচ্ছে ফোনে এবার হেডফোন জ্যাকের জন্য কোন জায়গা না রাখা এবং পিক্সেল থ্রি এক্সেল মডেলটিতে এতই বড় একটি নচ ব্যাবহার করা যা পিক্সেল ফ্যানরা এবং এমনকি কোন স্মার্টফোন ইউজারই চান নি বা আশা করেন নি।

তবে পিক্সেল থ্রি এক্সেল এর এত বড় নচ দেখে যারা আশাহত হয়েছিলেন, তাদের জন্য হয়তো এখনও কিছু আশা অবশিষ্ট আছে। রাশিয়ান টেক ব্লগ ROZETKED দাবী করেছে যে, তারা পিক্সেল থ্রি এর একটি লাইট ভার্শনের দেখা পেয়েছে যেটি নিয়ে গুগল সিক্রেটলি পরিকল্পনা করছে। এই ব্লগটির পাবলিশ করা লিকস অনুযায়ী, গুগল পিক্সেল থ্রি লাইটে থাকবে হেডফোন জ্যাক এবং থাকবে না কোন কুৎসিত নচ। পিক্সেল থ্রি লাইট ডিভাইসটির ডিজাইন হবে অরিজিনাল গুগল পিক্সেল থ্রি এর তুলনায় অনেক বেশি প্র্যাকটিকাল এবং ক্লিন।

পিক্সেল থ্রি লাইটে থাকতে পারে একটি ৫.৫৬ ইঞ্চির ফুল এইচডি আইপিএস ডিসপ্লে, যার ডিসপ্লে রেজুলেশন হবে ২২২০*১০৮০ পিক্সেল। এছাড়া পিক্সেল থ্রি লাইটে থাকবে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৭০ চিপসেট, যা একটি আপার মিডরেন্স চিপসেট যা খাতাকলমে বেশ ভালো পারফরমেন্স দিতে সক্ষম হবে। তাছাড়া গুগল এর সফটওয়্যার অপটিমাইজেশনের কারনে এই চিপসেটে চালিত অন্যান্য ডিভাইসের তুলনায় বেটার পারফর্ম করবে বলে আশা করা যায়। আপার মিডরেন্স চিপসেট ব্যাবহার করার ফলে এটিকে একটি বাজেট স্মার্টফোন হিসেবেই বাজারে আনতে পারে গুগল। তাই অরিজিনাল পিক্সেল ডিভাইসগুলোর তুলনায় কিছুটা হলেও কম প্রাইস হবে এই ডিভাইসগুলোর, এমনটাই আশা করা যায়।


WiREBD এখন ইউটিউবে, নিয়মিত টেক/বিজ্ঞান/লাইফ স্টাইল বিষয়ক ভিডিও গুলো পেতে WiREBD ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুণ! জাস্ট, youtube.com/wirebd — এই লিংকে চলে যান এবং সাবস্ক্রাইব বাটনটি হিট করুণ!

তবে, পিক্সেল থ্রি লাইটের ব্যাপারে গুগল অফিশিয়ালি নিজে থেকে কিছুই জানায়নি বা অ্যানাউন্স করেনি। এটি শুধুমাত্রই একটি স্মার্টফোন লিক, যার পুরোটা সত্যি হবে কিনা তার কোন নিশ্চয়তা নেই।