বর্তমান তারিখ:24 August, 2019

গান থেকে ভয়েস রিমুভ করার ১০টি বেস্ট সফটওয়্যার! [+ টিউটোরিয়াল]

গান থেকে ভয়েস রিমুভ করার ১০টি বেস্ট সফটওয়্যার! [+ টিউটোরিয়াল]

আজকের টপ ১০ বেস্ট সফটওয়্যার পোষ্টে আলোচনা করবো গান থেকে ভোকাল রিমুভ করার সফটওয়্যার নিয়ে। যখন আপনি এই সফটওয়্যারগুলো ব্যবহার করে কোনো গানকে প্রসেস করবেন তখন আউটপুট হিসেবে শুধু মিউজিক অংশটি পাবেন, অর্থ্যাৎ গানগুলো আপনার karaoke এর জন্য রেডি হয়ে যাবে। আজকের সফটওয়্যারগুলোর মাঝে কিছু সফটওয়্যারে রয়েছে inbuild preset যা দিয়ে আপনিএই রিমুভাল কাজটি করতে পারবেন, আবার কিছু সফটওয়্যারে গান থেকে ভয়েস রিমুভ করার জন্য plugins এর প্রয়োজন পড়বেকিংবা আপনাকে ম্যানুয়াল ভাবে calibrate করতে হবে।

আজকের প্রায় সকল সফটওয়্যারগুলোই সকল ধরণের পপুলার অডিও ফরম্যাট যেমন mp3, wav, ogg, wma,aiff, m4a, flac, acc, vox, raw, amr ইত্যাদিকেসার্পোট করবে। গান থেকে ভয়েস রিমুভ করার অস্থায়ী সমাধান দিয়ে চলুন আজকের পোষ্টটি শুরু করা যাক।

সফটওয়্যার ছাড়া ভোকাল রিমুভ

আপনার জরুরী ভিক্তিতে গান থেকে ভোকাল রিমুভ করতে হবে কিন্তু আপনার কাছে এই জাতীয় কোনো সফটওয়্যার নেই এবং ইন্টারনেটেও আপনার একসেস নেই। এই অবস্থা উইন্ডোজ এর বিল্ড ইন অপশন থেকে আপনি অস্থায়ী ভাবে যেকোনো গান থেকে ভয়েস রিমুভ করতে পারবেন। এর জন্য যা যা করতে হবে:

  • প্রথমে Control Panel এ যান, তারপর Sound সেটিংয়ে চলে যান
  • এবার যে ডিভাইসে আপনি মিউজিক প্লে করবেন সেটায় ক্লিক করুন যেমন Speakers, রাইট বাটন ক্লিক করে Properties এ আসুন
  • নতুন উইন্ডো আসবে, এখানে Enhancements ট্যাবে ক্লিক করে Voice Cancellation অপশনে ক্লিক করে Apply > Ok করে বেরিয়ে আসুন
  • এই সেটিং সেট করার পর এখন আপনি যেকোনো অডিও ফাইল চালু করেন না কেন, উইন্ডোজ এর এই সেটিংয়ের জন্য প্রতিটি গানের ভয়েস রিমুভ হয়ে তারপর প্লে হবে। এই সেটিংস থেকে টিক উঠিয়ে দিলে আবার স্বাভাবিক হয়ে পড়বে

Audacity

আমাদের আজকের লিস্টের প্রথম সাথে রয়েছে Audacity  — Audacity হচ্ছে একটি মাল্টি-প্লাটফর্ম Award Winning সাউন্ড এডিটর সফটওয়্যার। এটি একটি সম্পূর্ণ ফ্রি এবং ওপেন সোর্স সফটওয়্যার। শুধু গান থেকে ভয়েস নয়, বরং সাউন্ড রিলেটেড অনেক কাজই করতে পারবেন Audacityতে। সাউন্ড এডিটর সফটওয়্যার হওয়াতে অনান্য অপশনের মতোই গান থেকে ভয়েস আপনি এই Audacity এর মাধ্যমে রিমুভকরতে পারবেন। এছাড়াও Batch মোডে মানে একই সাথে একাধিক গান থেকেও আপনি ভয়েস রিমুভের ফিচারটি এখানে পেয়ে যাবেন।

Audacity যেহেতু একটি সাউন্ড এডিটর সফটওয়্যার, তাই কিভাবে সফটওয়্যারটিতে আপনি গান থেকে ভোকাল রিমুভ করবেন সে প্রসেসটি আমি বলে দিচ্ছি!

১ম পদ্ধতি

  • Audacity তে প্রথমে অডিও ফাইলটি লোড করুন, বেস্ট আউটপুট পাবার জন্য হাই কোয়ালিটি ফরম্যাট যেমন acc, flac কে বেছে নিন
  • গানের নাম আপনি উপরের বাম দিকের কর্নারে পাবেন। এই গানের নামের পাশের ড্রপডাউন প্রিসেটে ক্লিক করুন এবং “Split Stereo Track” অপশনে ক্লিক করুন।
  • এবার track টিকে ডাবল ক্লিক করে সিলেক্ট করুন এবং Effects ট্যাবে আসুন, তারপর Invert অপশনে ক্লিক করুন।
  • এবার আবারো tracks এর উপর ক্লিক করে drop down অপশনে চলে এসেছে দুটি track কেই Mono করে নিন।
  • সর্বশেষে গানকে যেকোনো ফরম্যাটে এক্সর্পোট করে নিন যেমন mp3, wav, ogg, flac, ac3 ইত্যাদি।

২য় পদ্ধতি

  • Audacity তে অডিও ফাইলটি ওপেন করুন
  • Effects ট্যাবে চলে যান, এবং Vocal Remover অপশনে ক্লিক করুন।
  • প্রসেসকৃত অডিও ফাইলটিকে এক্সর্পোট করুন।

Wavosaur

আমাদেরলিস্টের ২য় স্থানে রয়েছে Wavosaur। এটিও একটি সাউন্ড এডিটিং সফটওয়্যার। এখানে সাউন্ড রিলেটেড অনেক কাজই আপনি করতে পারবেন। আর সাথে সাথেWavosaur দিয়ে আপনি গান থেকে ভয়েসও রিমুভ করতে পারবেন। আর batch মোডেও আপনি ভয়েস রিমুভ করতে পারবেন, আর সাথে সাউন্ডরেকর্ডের অপশন তো থাকছেই! উল্লেখ্যযে এটি একটি ফ্রিওয়্যার সফটওয়্যার এবং এর সাইজও বেশছোট।

Wavosaur দিয়ে গান থেকে ভয়েস রিমুভ করতে হলে প্রথমে Wavosaur য়ে গানটি লোডকরুন। তারপর Process ট্যাবে গিয়ে Vocal Remover অপশনে ক্লিক করুন। এরপর সফটওয়্যারটি অটোমেটিক্যালি গানটি থেকে ভয়েসকে রিমুভ করতে থাকবে। কমপ্লিট হয়ে গেলে গানটিকে আপনি সেভ করে নিন। এছাড়াও সেভ করার আগে গানটি আপনি চালিয়ে দেখতে পারবেন।

MP3 Karaoke

উপরের২টি সফটওয়্যার কিন্তু সাউন্ড এডিটিং সফটওয়্যার। কিন্তু MP3 Karaoke একটি ভোকাল রিমুভার সফটওয়্যার। আপনার যদি শুধুমাত্র ভোকাল রিমুভ করার প্রয়োজন হয় তাহলে এইসফটওয়্যারটি ব্যবহার করতে পারেন। কারণ গান থেকে ভয়েস রিমুভ করাই এই সফটওয়্যারটির একমাত্রকাজ। MP3 Karaoke দিয়ে ভয়েস রিমুভ করতে হলে প্রথম সিম্পলি আপনার গানটিকে সফটওয়্যারে লোড করে নিন।

এবার বড় সাইজের K আইকনে ক্লিক করুন, বা কিবোর্ডের F3 বাটনপ্রেস করেও ভয়েস রিমুভার প্রসেসটি চালু করে ফেলতে পারেন। সফটওয়্যারটি দিয়ে একই সাথে একাধিক গানের ভয়েস রিমুভ করতে পারবেন। প্রসেস কমপ্লিট হয়ে গেলে আউটপুট ফোল্ডারে ভয়েস রিমুভকৃত গানগুলো পেয়ে যাবেন। সফটওয়্যারটিতে আপনি পাবেন Encoder Settings, আর এর ভেতরপাবেন samplingfrequency, stereo mode, bits per seconds এইঅপশনগুলো।

WavePad

লিস্টের আরেকটি ফ্রি অডিও এডিটর হচ্ছে WavePad। মানে এখানেওআপনি অডিও রিলেটেড অনেক কাজই করে নিতে পারবেন। আর গান থেকেভোকাল রিমুভেরও অপশন আপনি পেয়ে যাবেন এখানে। উল্লেখ্য যে এই সফটওয়্যারটিরনরমাল ভার্সনটি হচ্ছে পেইড ভার্সন। তবে এর আলাদা একটিফ্রি সংষ্করণ রয়েছে যা সফটওয়্যারটির অফিসিয়ালহোমপেজ থেকেই পেয়ে যাবেন। WavePad দিয়ে গান থেকে ভয়েস রিমুভ করতে হলে যা যা করবেন তা হচ্ছে:

  • WavePad সফটওয়্যারে গানটি লোড করুন, মানে File > Open > Browse and open
  • এবার Effects ট্যাবে চলে আসুন আর Reduce Vocals অপশনে ক্লিক করুন।
  • এখানে এসে আপনি বিভিন্ন অপশন পাবেন যেমন pan position, pan width, vocal level, preserve bass ইত্যাদি। অপশনগুলো নিজের মতো করে টেস্ট করে নিন এবং apply করুন
  • এবার গানটি যেকোনো লোকেশনে আপনি সেভ করতে পারবেন।

Ocenaudio

Ocenaudio হচ্ছেএকটি ক্রসপ্লাটফর্ম অডিও এডিটর সফটওয়্যার। আর এই সফটওয়্যারদিয়ে আপনি বেশ সহজেই গান থেকে ভোকাল রিমুভ করতে পারবেন। তবে Ocenaudio এর ইউজার ইন্টারফেসথেকে অনেকেই মনে করতে পারেন এটি অপারেট করার জন্য একটি কঠিন সফটওয়্যার। কোনো গান থেকে ভোকালকে মিনিমাইজ করতে কিংবা রিমুভ করতে নিচের ধাপগুলো অনুসরণ করুন:

  • Ocenaudio তে আপনার গানটি লোড করুন
  • Effects Tab থেকে Equalization অপশনে ক্লিক করুন। 31 Band graphic equalizer চালু হবে
  • এবার 250-1k রেঞ্জের equalizer কে 250 to 1k to 0dB তে নিয়ে আসুন। মডিফাইডকৃত গানটি চালিয়ে দেখুন ভয়েস রিমুভ হয়ে গিয়েছে।
  • মডিফাইড সেটিংস এর গানকে সেভ করে ফেলুন।

Nero WaveEditor

ফ্রিসাউন্ড এডিটর Nero WaveEditor দিয়ে আপনি Karaoke গান বানাতে পারবেন। আর অনান্য অডিওএডিটিংও করতে পারবেন। Nero WaveEditor দিয়ে গান থেকে ভয়েস রিমুভ করার জন্য প্রথমে সফটওয়্যারটিতে গানটি লোড করুন, তারপর Tools ট্যাবে গিয়ে Karaoke Filter এ ক্লিক করুন।

একটি ডায়ালগ বক্স আসবে যেখানে বিভিন্ন সেটিংস পাবেন যেমন vocal pan, gaincompensation, frequency pass ইত্যাদি,প্রয়োজন মতো সেটিংস করে নিয়ে ok বাটনে ক্লিক করুন। এবার গানটি প্লে করে দেখে নিন ভয়েস যথেষ্টমতো রিমুভ হয়েছে কিনা। তারপর গানটি সেভ করে নিন। অডিও এডিটর হওয়ায় এতে আপনি আলাদা প্লাগইনসও ব্যবহার করতে পারবেন।

LMMS

লিস্টের৭ম স্থানে রয়েছে LMMS। উল্লেখ্য যেএটি একটি ডিজিটাল অডিও ওয়ার্কস্টেশন যেটায় অনান্য কাজের সাথে আপনি গান থেকে ভয়েস রিমুভ করতে পারবেন। তবে এটি একটি High end অডিও এডিটিং সফটওয়্যার যেটা ব্যবহার করতে সাধারণ ইউজারদের একটু কঠিনতার সম্মুখিন হতে পারে। মানে এটি একটি complex tool! তবে আমিবলে দিচ্ছি কিভাবে LMMS দিয়ে গানথেকে ভয়েস রিমুভ করবেন:

  • প্রথমে Song Editor উইন্ডোতে আপনার গানটি লোড করুন
  • সফটওয়্যারটির ডান দিকের প্যানেলে ডাবল ক্লিক করে Piano Roll উইন্ডোকে চালু করুন।
  • এবার আপনাকে Vocal Remmover প্লাগইনকে ডাউনলোড করতে হবে, ডাউনলোড করে প্লাগইনকে song editor উইন্ডোতে drag and drop করে দিন
  • voice removal plugin যোগ করার পর গানটিকে আপনার পছন্দমতো স্থানে এক্সপোর্ট করে নিন।
  • উল্লেখ্য যে LMMS সফটওয়্যারটি Mp3 ফরম্যাটটি সার্পোট করে না, তাই গান থেকে ভোকাল রিমুভ করার সময় আপনাকে wav ফরম্যাটে কাজ করতে হবে।

GOM Player

উইন্ডোজের অন্যতম জনপ্রিয় একটি মিডিয়া প্লেয়ার হচ্ছে GOM Player। অডিও ভিডিও ফাইল প্লে করা ছাড়াও GOM Player দিয়ে আপনি গান থেকে ভোকাল রিমুভ করতে পারবেন, তবে এখানে লিমিটেশন হচ্ছে আপনি অডিও ফাইলকে সেভ করতে পারবেন না, শুধুমাত্র ভোকাল বিহীন গানকে GOM Player য়ে চালাতে পারবেন।

যারা গানগুলোকে পারমানেন্ট ভাবে vocaless করতে চান না এবং kakaoke এর চটচট অপশন খুঁজছেন তাদের জন্য এই পদ্ধতি বেশ কাজে দেবে। GOM Player য়ে কোনো গানকে লোড করুন। তারপর স্ক্রিণের উপর রাইট বাটন ক্লিক করুন, অনেকগুলো অপশন পপআপ হবে।

এবার এখান থেকে Audio > Voice filer > Cut Voice অপশনে টিক দিয়ে আসুন। তারপর দেখবেন আপনার গানটি থেকে ভয়েস মুছে যাবে। পুনরায়  Audio > Voice filer > Cut Voice থেকে টিক চিহ্ন উঠিয়ে দিলে আগের অবস্থায় ফিরে যাবেন।

KMPlayer

লিস্টের একদম শেষে রয়েছে KMPlayer। এটা পিসি অন্যতম জনপ্রিয় মিডিয়া প্লেয়ার। আর GOM প্লেয়ারের মতোও আপনি KMPlayer এ গান থেকে ভয়েস রিমুভ করতে পারবেন, তবে এখানেও এটা permanent ভাবে আপনার গান থেকে ভয়েস রিমুভ করবে না, শুধুমাত্র ভয়েস বিহীন ইফেক্টে গানগুলো প্লে করতে পারবে। এ জন্য প্রথমে KMPlayer এ গানটি লোড করুন।

তারপর স্ক্রিণে রাইট ক্লিক করুন, অপশনগুলো থেকে Audio > RareFilters > Voice Removal অপশনেটিক দিয়ে রাখুন। দেখবেন এরপর থেকে প্লেকৃত সকল গান থেকে ভয়েস রিমুভ হয়ে যাবে। আগের অবস্থায় ফিরে যেতে Audio > Rare Filters> Voice Removal থেকেটিক চিহ্নটি উঠিয়ে দিন।


এইছিলো গান থেকে ভয়েস বা ভোকাল রিমুভকরার বেস্ট ১০টি উপায়। আশা করবো আজকের পোষ্টটি আপনাদের কাজে আসবে। পোষ্টটি সোশাল মিডিয়াতে শেয়ার করে দিন যাতে আপনার বন্ধুরাও এই বিষয়গুলোর ব্যাপারেজানতে পারে।

যারা যারা শুধুমাত্র গান থেকে ভোকাল রিমুভ করতে চান তাদের জন্য আমি রেকোমেন্ড করবো MP3 Karaoke ব্যবহার করতে। তবে যারা ভয়েস রিমুভের সাথে সাথে অডিও গানে বিভিন্ন ইফেক্ট ব্যবহার করতে চান তাদের জন্য যেকোনো অডিও এডিটরের প্রয়োজন হবে।

আর যারা কোনোপ্রকার সফটওয়্যার পিসিতে ইন্সটল করতে চান না এবং ইন্টারনেট স্পিড যাদের ভালো রয়েছে তারা অনলাইন ভয়েস রিমুভার টুলগুলোকেও ব্যবহার করতে পারেন, তাদের মধ্যে একটি হচ্ছে Vocal Remover ProOnline!



WiREBD এখন ইউটিউবে, নিয়মিত টেক/বিজ্ঞান/লাইফ স্টাইল বিষয়ক ভিডিও গুলো পেতে WiREBD ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুণ! জাস্ট, youtube.com/wirebd — এই লিংকে চলে যান এবং সাবস্ক্রাইব বাটনটি হিট করুণ!

Feature Image: Getty

যান্ত্রিক এই শহরে, ভিডিও গেমসের উপর নিজের সুখ খুঁজে পাই। যার কেউ নাই তার কম্পিউটার আছে! কম্পিউটারকে আমার মতো করে আপন করে নিন দেখবেন আপনার আর কারো সাহায্যের প্রয়োজন হবে না।

2 Comments

  1. Shahadat Hussain Reply

    উল্টো কাজ করতে হলে কিভাবে করা যাবে ? গানে শুধু কন্ঠই থাকবে মিউজিক ডিলিট করতে চাইলে কিভাবে করবো ?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *