WireBD
বঙ্গবন্ধু-১ স্যাটেলাইট হারিয়ে গেলে

বঙ্গবন্ধু-১ স্যাটেলাইট হারিয়ে গেলে কি হবে? হিন্টস: আমাদের কিছুই করার থাকবে না!

মহাকাশ সুবিশাল, হ্যাঁ আমাদের কল্পনার থেকেও বিশালাকার! আর এই দৈত্যাকার ইউনিভার্সকে আরো বেটার বোঝার জন্য বা পৃথিবীতে কমিউনিকেশন আরো স্ট্রং করার জন্য মহাকাশে অনেক স্যাটেলাইট, স্পেস প্রোব, অরবিটারস ইত্যাদি পাঠানো হয়। কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত অনেক স্যাটেলাইট মহাকাশে হারিয়ে যেতে পারে এবং পূর্বে হারিয়ে গেছেও অনেক! বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট ১ একটি কমিউনিকেশন স্যাটেলাইট, যেটা যোগাযোগ ব্যাবস্থা আরো উন্নত করার লক্ষে মহাকাশে পাঠানো হয়েছে। এটি আমাদের নিজস্ব স্যাটেলাইট এবং শুধুমাত্র ও এক মাত্র স্যাটেলাইট — তো কি হবে, যদি বঙ্গবন্ধু-১ স্যাটেলাইট মহাকাশে হারিয়ে যায়? আর হারিয়ে গেলেই আমাদের কি করার থাকবে?

চলুন এই আর্টিকেল থেকে ধারণা নেওয়ার চেষ্টা করা যাক, মহাকাশে কোন স্যাটেলাইট হারিয়ে গেলে আমাদের কি করার রয়েছে, আমারা কি আদৌ হারিয়ে যাওয়া স্যাটেলাইট খুঁজে পেতে সক্ষম?

বঙ্গবন্ধু-১ স্যাটেলাইট হারিয়ে গেলে

বিশেষ করে আপনি যদি নিয়মিত ফেসবুক ইউজ করে থাকেন বা ইউটিউবে আজাইরা ভিডিও দেখে সময় নষ্ট করেন, সেক্ষেত্রে আপনি অবশ্যই জানেন বেশ কিছুদিন থেকে এক জনপ্রিয় গুজব অনলাইনে ছড়ানো হচ্ছে, “বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট হারিয়ে গেছে!” — অনেকেই এই ব্যাপার নিয়ে অনেক মতামত এবং অ্যাক্টিভিটি প্রকাশ করেছেন, পরে বড় পত্রিকা গুলোতে এই ব্যাপারে লিখে জানানো হয় এবং একে জাস্ট একটি গুজব বলে ঘোষণা করা হয়। এই আর্টিকেলে আমি কোন গুজবের সত্য বা মিথ্যা যাচায় করবো না, জাস্ট আলোচনা করবো যদি সত্যি সত্যিই কোন স্যাটেলাইট মহাকাশে হারিয়ে যায় সেক্ষেত্রে কি ঘটতে পারে।

ওয়েল, স্যাটেলাইট হারিয়ে যাওয়া মানে কিন্তু এই নয় স্যাটেলাইটটি কোথায় রয়েছে সেটি সম্পর্কে জানতে না পারা, কোন স্যাটেলাইট হারিয়ে যাওয়া মানে হচ্ছে স্যাটেলাইটটির সাথে নিয়ন্ত্রণ যোগাযোগ হারিয়ে ফেলা। এখন প্রশ্ন হচ্ছে, স্যাটেলাইটের সাথে যোগাযোগ কেন হারিয়ে যাবে? তাহলে এতো হাজার কোটি টাকা খরচ করে লাভই বা কি? অনেক কারণে স্যাটেলাইটের ইলেকট্রনিক্স সিস্টেম ড্যামেজ হতে পারে। আর সবচাইতে বড় কারণ হচ্ছে সোলার উইন্ড, সূর্য থেকে প্রত্যেক মুহূর্তে বিশাল পরিমাণে হাইলি চার্জড পারটিকেলস মহাকাশে ছড়িয়ে পড়ছে। আর এগুলোর আঘাতে নিমিষের মধ্যেই যেকোনো ইলেক্ট্রনিক্স ডামেজ হয়ে যেতে পারে। পৃথিবীর ঘন এট্মস্ফিয়ার এবং শক্তিশালী চৌম্বক ক্ষেত্র থাকার কারণে সোলার উইন্ডস পৃথিবীর পৃষ্ঠে পৌছাতে পারে না, কিন্তু যদি পৌঁছাত তো দুনিয়ার সকল ইলেক্ট্রনিকস নিমিয়েই বরবাদ হয়ে যেতো!

তবে স্যাটেলাইট হারিয়ে যাওয়া মোটেও অস্বাভাবিক কিছু নয়। আমাদের পার্শ্ববর্তী দেশ ইন্ডিয়ার চন্দ্রজান-১ স্যাটেলাইটটি চাঁদে পাঠানোর মাত্র ১ বছরের মধ্যেই হারিয়ে যায়। যদিও ন্যাসা তাদের বিশাল রাডার ব্যবহার করে স্যাটেলাইটটির লোকেশন খুঁজে বের করেছে, কিন্তু সেটা এখনো হারিয়ে যাওয়া স্যাটেলাইটের খাতাতেই রয়েছে, কেননা তার সাথে পরবর্তীতে আর যোগাযোগ করা সম্ভব হয় নি!

তো ধরুন আমাদেরও কপাল খারাপ আর বঙ্গবন্ধু-১ আর খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না, মানে কমিউনিকেশন সিস্টেম কাজ করছে না তাহলে এখন আমরা কি করতে পারি? শুনতে খারাপ লাগলেও সত্য, হয়তো আমাদের বেশি কিছু করার থাকবে না। নাসা/জেপিএল এর বিশাল রাডার ইউজ করে সিগন্যাল পাঠিয়ে হয়তো স্যাটেলাইটের বর্তমান লোকেশন পেয়ে যাবো, কিন্তু স্যাটেলাইট যদি রাগ করে আমাদের সাথে কথা না বলে আমাদের কিছুই করার থাকবেনা!

স্যাটেলাইট এতো সহজেও হারিয়ে যায় না

তবে প্রথমেই একেবারে নিরাশ হবেন না, কেননা স্যাটেলাইটের কম্পিউটার সিস্টেম অনেক খারাপ বা প্রতিকূল পরিবেশে কাজ করার জন্যই বিশেষভাবে তৈরি করা হয়েছে, আর এই জন্যই স্যাটেলাইট বানাতে হাজারো কোটি খরচ হয়। এটা কম্পিউটার, মানে যতোই মিলিয়ন কিলোমিটার দূরে থাকুক না কেন পিং রিকয়েস্ট পেয়ে গেলে কম্পিউটার পিং ব্যাক করবে।

আর স্যাটেলাইট’টি অন থাকলে মানে এর মধ্যের ব্যাটারিতে চার্জ আর কম্পিউটার সিস্টেম কাজ করলে যেকোনো সময় হারিয়ে যাওয়া স্যাটেলাইট আবার কথা বলতে শুরু করতে পারে। স্যাটেলাইটের রেডিও রিসিভার এন্টেনা গুলো অত্যন্ত সেন্সিটিভ হয়ে থাকে, সামান্য মানে একেবারেই ক্ষীণ কোন সিগন্যাল হলেও সেটা রিসিভ করার ক্ষমতা রাখে।

তবে তখন বিষয়টা অনেকটা ভাগ্যের উপরও নির্ভর করে, কেননা স্পেস সত্যিই অকল্পনীয় আকারের বড়, স্যাটেলাইট হারিয়ে গেলে আমাদের সিগন্যাল সেন্ড করতে থাকতে হবে ভাগ্য ভালো হলে হারিয়ে যাওয়া স্যাটেলাইট সিগন্যাল ব্যাক করবে আর তা না করলে বিশেষ কিছু করার থাকবে না। যদি বঙ্গবন্ধু-১ হারিয়ে যায় আর খুঁজে না পাওয়া যায়, তাহলে হয়তো পরবর্তীতে আরো স্মার্ট সিস্টেম তৈরি করা হবে যাতে হারিয়ে গেলে আবার খুঁজে পাওয়া পাওয়া সম্ভব হয়, বা হতে পারে বন্ধুবন্ধু-১ অলরেডিই অনেক স্মার্ট!

সৌভাগ্যবশত বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ হারিয়ে যায়নি, আর সকল ইন্টারনেট গুজব এই মুহূর্তে মিথ্যা, তবে মহাকাশে স্যাটেলাইট হারিয়ে যেতেই পারে আর সেটা আমাদের মতো দেশের জন্য সত্যিই অনেক খারাপ খবর। যাই হোক, আমাদের স্যাটেলাইট যদি সত্যি সত্যিই হারিয়ে যায়, সেক্ষেত্রে কি কি বিপর্যয় ঘটতে পারে আমাদের নিচে কমেন্ট করে জানান। আর বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট কিভাবে কাজ করে বিস্তারিত জানতে এই আর্টিকেলটি পড়তে পারেন।


Feature Image By piick/Shutterstock

তাহমিদ বোরহান

প্রযুক্তির জটিল টার্মগুলো কি আপনাকে বিভ্রান্ত করছে? কিছুতেই কি আপনার মস্তিষ্কে পাল্লা পড়ছে না? তাহলে বন্ধু, আপনি এবার সঠিক জায়গায় এসেছেন—কেনোনা এখানে আমি প্রযুক্তির সকল জটিল বিষয় গুলো ভাঙ্গিয়ে সহজ পানির মতো উপস্থাপন করার চেষ্টা করি, যাতে সকলে সহজেই সকল টেক টার্ম গুলো বুঝতে পারে।

5 comments

  • আমাদের চিন্তা চেতনা কেবলই খারাপ।বস্তুতঃ আমরা অন্যের দোষ খোজ করতে ব্যস্ত।স্যাটেলাইট নিয়ে আমাদের এতো মাথাব্যাথা কেন ? আমাদের অন্য কোন কাজ নেই।বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট হারিয়ে যাওয়া কিংবা ড্যামেজ হওয়ার জন্য তৈরি করা হয়নি। যোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তির অগ্রযাত্রা মাধ্যম হিসেবে ব্যবহার করার জন্য তৈরি করা হয়েছে।

সোশ্যাল মিডিয়া

লজ্জা পাবেন না, সোশ্যাল মিডিয়া গুলোতে টেকহাবসের সাথে যুক্ত হয়ে সকল আপডেট গুলো সবার আগে পান!